ফের এক অমানবিক কান্ডের সাক্ষী মহানগরী, নির্জন রাস্তার ধারে পড়ে আছেন প্লাস্টিক আবৃত এক বৃদ্ধা—



HnExpress নিজস্ব প্রতিনিধি, সিঁথি ঃ ফের এক অমানবিক কান্ডের সাক্ষী হয়ে রইল কলকাতা মহানগরী। এদিন সকালে সিঁথি থানার অন্তর্গত পেয়ারাবাগান এলাকার এক রাস্তার ধারে পড়ে থাকতে দেখা গেল এক বৃদ্ধাকে। বৃ্দ্ধা মাকে আস্তাকুঁড়ের আবর্জনার মত এক নির্জন রাস্তার ধারে ব্যানারের প্লাস্টিকে মুড়ে ফেলে গেল তাঁরই নিজের পরিবার। বহু পথচলতি মানুষই তাঁকে বেওয়ারিস মৃতদেহ মনে করে পাশ কাটিয়ে চলে যায়। এমনতর অমানবিক নিষ্ঠুর ঘটনা আজ গোটা মানবজাতির কাছে নিতান্তই লজ্জার ও কলঙ্কের কালো ইতিহাস হয়ে রইল।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, বৃহস্পতিবার সকালে বিটি রোড সংলগ্ন সিঁথির মোড়ের কাছে মেট্রো বাইপাস এলাকায় যাতায়াতের সময় বেশকিছু মানুষ এক ক্ষীণ আর্তনাদ শুনতে পায়। সেই আওয়াজের উৎসের অনুসন্ধান করে কাছে যেতেই তাঁরা রীতিমতো হতবাক্। প্রায় আশি বছরের ঊর্ধ্বে এক বৃদ্ধা ব্যানারের প্লাস্টিকে আবৃত অবস্থায় পড়ে আছেন, আর বাঁচার জন্য সেই ক্ষীণ আর্তনাদ তাঁরই। এমন এক মর্মান্তিক ঘটনার খবর পেয়েই ঘটনাস্থলে ছুটে আসেন সিঁথি থানার পুলিস।

তাঁরা বৃদ্ধাকে উদ্ধার করে সাধারণ মানুষের সহায়তায় আর জি কর মেডিকেল হাসপাতালে ভর্তি করেন। বর্তমানে তিনি চিকিৎসাধীন অবস্থায় আছেন। পুলিশ সুত্রে জানানো হয়েছে, বৃদ্ধার নাম ঠাকুর দাসী সাহা। যদিও বৃদ্ধা কথা বলার মত অবস্থায় নেই। তবুও তাঁর অস্পষ্ট কথা অনুযায়ী পুলিস জানতে পারেন, বৃদ্ধার মেয়ের নির্দেশেই তাঁর ছেলেরা ব্যানারে মুড়িয়ে প্রবল বৃষ্টির মধ্যেই রিক্সায় করে এনে এখানে ফেলে দিয়ে গেছেন। যদিও তিনি বাড়ির ঠিকানা ঠিকঠাক বলতে পারেননি। পুলিশ তদন্তের পাশাপাশি বৃদ্ধার পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করে চলেছে।

Leave a Reply

%d bloggers like this: