July 20, 2024

দলে আবার ফিরতে হলে নিজেকে নির্দোষ প্রমাণ করেই ফিরতে হবে ঃ অভিষেক ব্যানার্জি

0

বরখাস্ত পার্থ চট্টোপাধ্যায়। মন্ত্রীত্ব সহ দলের পাঁচ পদ থেকে তাঁকে অপসারণ করা হলো। বৃহস্পতিবার তৃণমূল ভবনে সাংবাদিক বৈঠক করে এমনই ঘোষণা করলেন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়।



HnExpress নিজস্ব প্রতিনিধি, কলকাতা ঃ মন্ত্রীত্ব হারানোর পর এবারে দলের ৫টি বিশেষ পদ থেকেও অপসারণ করা হলো ধৃত পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে। এদিন তৃণমূলের পক্ষ থেকে সাংবাদিক বৈঠক করে অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায় জানান যে, দল ও দলের সমস্ত পদ থেকে পার্থ চট্টোপাধ্যায়কে বহিষ্কার করা হলো।


তিনি আরও বলেন যে, তৃণমূলের মহাসচিব পদ সহ মোট পাঁচটি গুরুত্বপূর্ণ পদে নিযুক্ত ছিলেন পার্থ। দলের মহাসচিব, তৃণমূলের মুখপত্র ‘জাগো বাংলা’-র সম্পাদক, শৃঙ্খলারক্ষা কমিটির সদস্য, সর্ব ভারতীয় সহ-সভাপতি সহ দলের ৫টি পদ থেকে আজ তাঁকে অপসারিত করা হয়েছে। তাঁর কথায়, “কোথা থেকে এত টাকা এল, আগে তার তদন্ত হোক।



দলে ফিরতে হলে বিচার ব্যবস্থার মাধ্যমে নিজেকে নির্দোষ প্রমাণ করে তবেই স্বমহিমায় দলে ফিরে আসুন। আমরা কোনো দুর্নীতির সঙ্গে আপোস করি না। যে যত বড় নেতা, বিধায়ক, সাংসদ হোন না কেন, তৃণমূল কংগ্রেস দুর্নীতিকে প্রশয় দেয় না, আশকারা দেয় না।”


পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের বিরুদ্ধে যে দল কোনো না কোনো কঠোর সিদ্ধান্ত নিতে চলেছে তা এদিন সকাল থেকেই স্পষ্ট ছিল। গতকাল নিজের সোশ্যাল মিডিয়া প্রোফাইলে প্রাক্তন শিক্ষামন্ত্রীর অপসারণ চেয়ে সরব হন কুণাল ঘোষ, দেবাংশু ভট্টাচার্য সহ তৃণমূলের নেতৃত্বরা। উল্লেখ্য, পার্থ চট্টোপাধ্যায়ের গ্রেফতারের পরে তৃণমূলের মুখপাত্র কুণাল ঘোষ বলে ছিলেন, “যাঁর কাছ থেকে টাকা পাওয়া গিয়েছে বা যাঁদের নাম এসেছে তাঁরা ভালো বলতে পারবেন।


এর সঙ্গে তৃণমূল কংগ্রেসের কোনও সম্পর্ক নেই। যে যত বড় নেতাই হোক, কেউ কোনও অন্যায় করে থাকলে সেক্ষেত্রে আইন আইনের পথেই চলবে। তবে তার সাথে তৃণমূল কংগ্রেসকে জড়াবেন না।”

Leave a Reply