কালী কথা : খালোড় কালীবাড়ি

HnExpress ১০ই নভেম্বর, বাপ্পাদিত্য ঘোষাল ঃ বাগনান স্টেশন থেকে আড়াই কিমি দূরত্বেই অবস্থিত খালোড় কালী মন্দির। জানা যায়, একসময়ে বাগনান ছিল মোঘল আমলের জমিদার কন্দর্পনারায়ণের জমিদারির অন্তর্গত।

শ্রুতিকথা অনুযায়ী, রাজা দেবী কালীকার স্বপ্নাদেশে দামোদরের তীরে কালীমূর্তি প্রতিষ্ঠা করেন। মন্দির ইট নির্মিত। মন্দিরের ভিতরে দক্ষিণাকালী ও নীচে রয়েছে শয়নরত শিবের নিমকাঠের মূর্তি।

পুরানো কাঠের মূর্তি নষ্ট হয়ে গেলে, ১২৯৫ সালে নতুন করে কাঠের মূর্তি প্রতিষ্ঠা করা হয়। বর্তমানে সেই কালীর মূর্তিটি নিম কাঠ দ্বারা তৈরি, যার প্রাণ প্রতিষ্ঠা হয় ১৩৪৭ বঙ্গাব্দের ৩২শে আষাঢ়। এই দিনটি মায়ের জন্মদিন হিসাবে পালিত হয়।

মন্দিরের সামনে নাটমন্ডপের দুপাশে দুটো আটচালা শিব মন্দির রয়েছে। পূর্বমুখী মন্দিরে বাণলিঙ্গ ও পশ্চিমমুখো মন্দিরে মৃত্যুঞ্জয় শিব প্রতিষ্ঠিত। ভাদ্র ও পৌষ মাসে দেবীর পুজো হয় ও মেলা বসে। জন্মদিন ছাড়াও তালকালী এবং মূলকালী মেলা অনুষ্ঠিত হয়।

মন্দিরের পশ্চিমে রাস্তার অন্যদিকে রয়েছে ধর্ম মন্দির। মন্দিরটি পুরনো হলেও ১৩৮৬ বঙ্গাব্দে ছাদযুক্ত মন্দির তৈরি হয়। মন্দিরে পালযুগের কষ্টিপাথরের বিষ্ণুমূর্তি ও ৬টি পাথরের কূর্মমূর্তি আছে।

Leave a Reply

%d bloggers like this: