বিনামূল্যে হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ করছে গ্ৰামীণ যুবক যুবতীরা

HnExpress ২১শে এপ্রিল, অভিজিৎ হাজরা, হাওড়া ঃ করোনা ভাইরাসের সংক্রমণের হাত থেকে রেহাই পেতে হ্যান্ড স্যানিটাইজার একান্তই প্রয়োজন, এমনটাই পরামর্শ দিচ্ছেন বিশেষজ্ঞ, চিকিৎসকগণ। তাই বর্তমানে বিনামূল্যে হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণ করছে গ্ৰামীণ যুবক যুবতীরা। প্রসঙ্গত, বেঙ্গালুরুর ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউট অফ সায়েন্সের মেটিরিয়াল সায়েন্সের বিজ্ঞানী অরিজিৎ জানা হ্যান্ড স্যানিটাইজার তৈরীর কাজ করছেন বলে জানা গেছে।

তাঁর প্রচেষ্টায় জীবাণুনাশক তৈরীর কাজ শুরু হয়ে গিয়েছে ইতিমধ্যেই। হাওড়া জেলার আমতা ১নং, ও বাগনান ১নং ব্লক ডেভেলপমেন্ট অফিস থেকে এই হ্যান্ড স্যানিটাইজার বিতরণের বরাত পেয়েছেন। গ্ৰামীণ হাওড়ার আমতা ১নং ব্লকের একটি স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের সদস্য এবং সদ্যসারা অরিজিৎ এর কাজে নিজেদের আত্ম নিয়োজিত করেছেন। অরিজিৎ জানা বললেন, এই হ্যান্ড স্যানিটাইজার সম্পুর্ন ভাবেই বৈজ্ঞানিক উপায়ে তৈরি করা হচ্ছে।

এই হ্যান্ড স্যানিটাইজার তৈরীর জন্য ব্যবহার করা হচ্ছে উড্ স্পিরিট, প্রাকৃতিক অ্যালোভেরা, পাতিত জল। আর আমতা -১ নং, বাগনান ১ নং ব্লকের বিভিন্ন গ্ৰামের হাজার হাজার মানুষের হাতে সম্পূর্ণ বিনামূল্যেই তাদের তৈরি এই হ্যান্ড স্যানিটাইজার তুলে দিচ্ছেন সেই স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের সদস্য-সদ্যস্যারা। এরই পাশাপাশি এটির ব্যবহারের প্রয়োজনীয়তা এবং এই হ্যান্ড স্যানিটাইজার ব্যবহার করার পদ্ধতির ও পাশাপাশি বাড়িতে থাকার জন্য পরামর্শ সহ মাস্ক ব্যবহারের প্রয়োজনীয়তা প্রসঙ্গেও তাঁরা জনগণকে সচেতন করছেন।

সংগঠনের সদস্য-সদস্যারা যথারীতি নিজেদের মধ্যে দূরত্ব বজায় রেখে ও সরকারি বিধিনিষেধ মেনে কোভিড ১৯ সংক্রমণনাশক এই হ্যান্ড স্যানিটাইজার তৈরীতে দিন রাত এক করে কাজ করে চলেছে। সংগঠনের সদস্য-সদস্যাদের এই মানবিক কাজে সহযোগিতা করার জন্য এগিয়ে এসেছেন এলাকার সচেতন যুবক-যুবতীরাও।
বিভিন্ন গ্ৰামের বহু সচেতন মানুষ সংগঠনের সদস্য-সদ্যস্যাদের এই দৃষ্টান্তমূলক মানবিক কাজকে সাধুবাদ জানিয়েছেন।

সংগঠনের সদস্য-সদস্যাদের এই উদ্যোগ প্রসঙ্গে রাজ্য সরকারের এক আধিকারীক বলেন, এমন সংকটময় পরিস্থিতিতে গ্ৰামীণ যুবক-যুবতীদের এই হ্যান্ড স্যানিটাইজার তৈরী করে তা সাধারণ মানুষের মাঝে বিনামূল্যে বিতরণ কর্মসূচির বিষয়টা রাজ্য সরকারের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের অবশ্যই জানানো হবে। ভবিষ্যতে যুবক যুবতীদের এই উদ্যোগ এবং এই কাজকে স্বনির্ভর প্রকল্পের আওতায় আনা হবে বলেও তিনি জানান।

অন্যদিকে আমতা ১ নং ও বাগনান ১ নং ব্লকের সমষ্টি উন্নয়ন আধিকারিকবৃন্দ জানালেন, এই হ্যান্ড স্যানিটাইজার তৈরীর জন্য যত রকমের কাঁচামালের সামগ্ৰীর প্রয়োজন হবে সেই সমস্ত সামগ্ৰী সরকারি ভাবে সংগঠনটিকে সরবরাহ করা হবে। রাজ্যবাসীর পাশে দাঁড়ানোর তাগিদে সংগঠনের সদস্য-সদস্যাদের এই কাজের জন্য সরকারের আধিকারিকরা সমস্ত রকম সাহায্য বা সহযোগিতা করবে বলে জানিয়েছেন।

 

Leave a Reply

%d bloggers like this: