ভ্যাক্সিন সার্টিফিকেট ব্যাতিত মিলবে না মদ, মাথায় হাত তামিলনাড়ুর সুরাপায়ীদের



HnExpress নিজস্ব প্রতিনিধি ঃ প্রায় দোড় গোড়ায় এসে করাঘাত করছে মারন ভাইরাস করোনার তৃতীয় ঢেউ। সংক্রমণ থেকে রক্ষা পেতে একমাত্র হাতিয়ার হল ভ্যাক্সিনেশন। আর এর পাশাপাশি সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা ও মাস্ক পরিধান করা। কিন্তু কিভাবে এই দূরত্ব বজায় থাকবে ব্যাস্ততম শহরগুলি জুড়ে? তাই মারণ ভাইরাস এড়াতে হলে ভরসা একমাত্র করোনার টিকাকরণ। কিন্তু অনেকের মধ্যেই এই টিকা নিয়ে ভীতি বা অনীহা দেখা দিয়েছে।

ফলে এই পরিস্থিতিতে টিকা নিতে সাধারণ মানুষ যাতে এগিয়ে আসে তার জন্য নয়া পন্থা অবলম্বন করল তামিলনাড়ুর একটি জেলা। তামিলনাড়ুর নীলগিরি জেলার এই নতুন নিয়মে বেশ অস্বস্তিতে পড়েছেন সুরাপায়ীরা। সেখানে স্থানীয় কর্তৃপক্ষের তরফ থেকে জানানো হয়েছে যে, ভ্যাকসিন সার্টিফিকেট না দেখাতে পারলে সেই ক্রেতাকে মদ বিক্রি করা হবে না।



টিএএসএমএসি-র আউটলেটগুলি থেকে যারাই মদ কেনেন, তাদের এই নিয়ম অনুসরণ করতেই হবে। নির্দেশিকায় জানানো হয়েছে, মদ কেনার জন্য পরিচয়পত্রের পাশাপাশি এবার থেকে দেখাতে হবে করোনার ভ্যাকসিন সার্টিফিকেট। শুধু তাই নয়, করোনা টিকার দুটি ডোজই নেওয়া হয়ে গিয়েছে, তা সার্টিফিকেটে লেখা থাকলে তবেই গ্রাহকরা মদ কিনতে পারবেন। ফলত মাথায় হাত সুরাপায়ীদের।

এদিন নীলগিরির জেলাশাসক জানান, বাড়ি বাড়ি প্রচার চালানো সত্ত্বেও অনেকের মধ্যেই টিকাকরণ নিয়ে অনীহা রয়ে গিয়েছে। সাধারণ মানুষ যাতে টিকা নিতে এগিয়ে আসেন, সেই লক্ষ্যেই এই নির্দেশিকা জারি করা হয়েছে। তিনি আরও জানান যে, জেলার প্রায় ৯৭ শতাংশ জনগণই ইতিমধ্যেই করোনা টিকার প্রথম ডোজ পেয়ে গিয়েছেন।

তাঁরা যাতে দ্বিতীয় ডোজটিও একটি নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে নেন, সেই লক্ষ্যেই এই অভিনব অথচ কড়া নির্দেশিকা জারি করা হয়েছে সরকারের পক্ষ থেকে। এছাড়াও ভ্যাকসিন সার্টিফিকেটের পাশাপাশি ক্রেতাদের নিজের আধারকার্ডও দেখাতে হবে বলে জানানো হয়েছে। সমস্ত টিএএসএমএসি আউটলেটেই এই নিয়ম প্রযোজ্য।

Leave a Reply

%d bloggers like this: