মাত্র ৬ বছরের শিশুকে ছিঁড়ে খেল কিছু সারমেয়দের দল

HnExpress রূপা বিশ্বাস ঃ সম্প্রতি একটি তথ্যসূত্র অনুযায়ী জানা যায়, গত শুক্রবার কিছু সারমেয় এর দল এক অসুস্ত মায়ের সামনেই ছিঁড়ে খেল তার ৬ বছরের বাচ্চাটিকে।
এই চাঞ্চল্যকর ঘটনাটি ঘটেছে ভোপালের আধোয়াপুরী এলাকার শিবসংগ্রাম নগরে।
এলাকার প্রতক্ষ্যদর্শীদের তথ্য অনুযায়ী মহিলাটির প্রথম সন্তানটি এই সবে ৬ বছরের। আর গত মাসেই আর একটা সন্তানের জন্ম দেন তিনি। সেই কারণে অস্ত্রপোচারের পর মহিলাটি তার ঘরে অচৈতন্য অবস্থায় ঘুমিয়ে ছিলেন। আর তার ৬ বছরের শিশুটি ঘুমন্ত মায়ের পাশেই খেলছিল আপন মনে।

প্রতিবেশীদের কথা অনুযায়ী, গত রাত্রে শিশুটির বাবা কর্মসুত্রে বাইরের কাজ মিটিয়ে বাড়ি ফিরে সন্তানের খোঁজ নেন এবং তাকে কোথাও খুঁজে না পাওয়ায় তখন শিশুটির মা বাইরে বেরিয়ে আসেন। এবং বাইরে বেরিয়ে একটু খোঁজ নিয়ে দেখেন বাড়ির থেকে প্রায় ৩০০ মিটার দূরেই কিছু সারমেয় এর দল ঘিরে ধরে কামড়াকামড়ি করছে বাচ্চাটিকে। ফলে প্রচণ্ড ভাবে আহত হয়ে যায় বাচ্চাটি। ইতিমধ্যে ওই ৬ বছরের বাচ্চাটি জ্ঞানও হারিয়ে ফেলে।

অতঃপর মহিলাটির চিৎকারে এলাকার লোকজন ছুঁটে আসেন এবং তাদের ভয়ে বাচ্চাটিকে ফেলে এলাকা ছাড়তে বাধ্য হয় ওই সারমেয়দের দল। তড়িঘড়ি অজ্ঞান অবস্থায় বাচ্চাটিকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়, কিন্তু ততক্ষণে অনেকটাই দেরি হয়ে গেছে। চেকআপ এর পরে চিকিৎসকরা তাঁকে মৃত বলে ঘোষনা করেন। এদিকে গ্রামবাসীদের অভিযোগ এমন ঘটনা নাকি এখানে এর আগেও বহুবার ঘটেছে।
তারা বলছেন গত বছরেও এই একই ঘটনা ঘটে গোকুলধাম এলাকায়। তখনও একটি ৬ বছরের বাচ্চাকে এবং কিছু এলাকাবাসিকে আহত করে এমনই কিছু রাস্তার হিংস্র নেড়ি কুত্তার দলবল।

তারা অনেক আগেই এই পরিস্থিতি থেকে মুক্তির আশায় নিরাপত্তার জন্য পুরসভাকে বহুবার জানিয়েছে। যাতে এই সারমেয়দের কোনো একটা প্রশাসনিক ব্যবস্থা নেওয়া হয়। কারণ এখন আবার জায়গায় জায়গায় কুকুর প্রেমী সংগঠন গড়ে ওঠায় এইসব নিরীহ প্রাণীদের কিছু বলার উপায় নেই। মানুষ মড়ে মরুক, কিন্তু কুকুর প্রেম আগে। তাই প্রশাসনকে এই বিষয় যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ এর জন্য আবেদন জানানো হয়। কিন্তু প্রশাসনের তরফ থেকে কোনরকম ব্যাবস্থাই নেয়া হয়নি এযাবৎ। আর ফল স্বরূপ আবারও সেই একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঘটল। আজ এই শিশু মৃত্যুর জন্য এলাকাবাসি মূলত নিরব প্রশাসনকেই দায়ী করছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। প্রশাসনের নজরদারি থাকলে হয়তো আজ একটা মা তার ৬ বছর ধরে কোলে পিঠে করে মানুষ করা নাড়ী ছেড়া সন্তান হারাতেন না ।

Leave a Reply

Latest Up to Date

%d bloggers like this: