বৈদ্যুতিন ট্রাফিক সিগনাল না থাকায় বাড়ছে যানজট

HnExpress পল মৈত্র, দক্ষিন দিনাজপুর ঃ দক্ষিণ দিনাজপুর জেলার গঙ্গারামপুর শহরের অন্যতম ব্যাস্ত এলাকা চৌমাথা মোড়, অথচ এই মোড়ে ট্রাফিক সিগন্যাল ব্যবস্থা বন্ধ থাকায় নিত্যদিন যানজটের সৃষ্টি হচ্ছে বলে অভিযোগ। আর তাতেই এলাকায় যানজট তীব্র আকার নিয়েছে এবং ভুগতে হচ্ছে স্থানীয় বাসিন্দা থেকে শুরু করে পথচারীদের। এতদিন বৈদ্যুতিন সিগন্যাল ব্যবস্থায় অভ্যস্ত এই মোড়ে এখন সিভিক ভলেন্টিয়ার দিয়ে ট্রাফিক সামলানো হচ্ছে। অভিযোগ, এর ফলে ক্রমশ বাড়ছে যানজট এদিক ওদিক থেকে ছোট যানবাহন ঢুকে তীব্র যানজটের সৃষ্টি করছে।

সুত্রের খবর, প্রতিদিন ভোগান্তির শিকার হচ্ছেন স্থানীয় বাসিন্দারা। বাসিন্দারা জানিয়েছেন, আগে এই মোড়ে স্বয়ংক্রিয় ট্রাফিক সিগনাল ঢাকায় যানজট মোকাবিলা করা যেত এখন সেই ব্যবস্থা নেই। সিভিক ভলেন্টিয়ারদের দিয়ে ট্রাফিক নিয়ন্ত্রণ করা হচ্ছে কিন্তু অনেকেই তা মানছেন না আর তাতেই যানজট হচ্ছে। প্রশাসন দ্রুত সিগনালিং ব্যবস্থা চালু করুক বলে স্থানীয় বাসিন্দারা দাবী জানিয়েছেন। এই মোড়ে গঙ্গারামপুর পুরসভার বর্ষপূর্তিতে একটি বিশাল জলের ফোয়ারা বসানো হয়েছে, গত বছরের নভেম্বরে উদ্বোধন হয় ফোয়ারাটির। সূত্রের খবর সেই সময় সিগন্যাল ব্যবস্থার বিদ্যুৎ সংযোগ ছিন্ন করা হয় তারপর থেকেই তা বন্ধ হয়েছে বলে খবর। অভিযোগ, সিভিক ভলেন্টিয়ারদের দিয়ে ট্রাফিক নিয়ন্ত্রণ করা হচ্ছে এবং অনেকেই তা মানছেন না। স্থানীয় বাসিন্দাদের বক্তব্য, ৫১২ নম্বর জাতীয় সড়কের ওপরে থাকা এই চৌমাথা মোড়ে মালদা-বালুরঘাট থেকে শিববাড়ি ও তপন সহ চারিদিক থেকেই প্রচুর যানবাহন এই মোড় দিয়ে যাতায়াত করে।

সবমিলিয়ে সকাল থেকে রাত পর্যন্ত এলাকায় যানবাহনের ভীড় লেগেই থাকে তার উপর রয়েছে শহরের অসংখ্য অটো, টোটো, মোটর বাইক, স্কুটি, সাইকেল ও পথ চলতি মানুষ। সবমিলিয়ে এলাকাটির যানজটে খুব সমস্যা হয়। বাসিন্দাদের উদ্বোধনের প্রায় দু মাস পরেও কেন বৈদ্যুতিক ট্রাফিক সিগনাল চালু হচ্ছে না তা নিয়ে প্রশ্ন তুলছেন স্থানীয় বাসিন্দারা। যদিও গঙ্গারামপুর ট্রাফিক পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে শীঘ্রই সিগন্যাল ব্যবস্থা চালু করা হবে। তবে আপাতত সমস্যা সমাধানের অপেক্ষায় অপেক্ষারত এলাকাবাসী।

Leave a Reply

Latest Up to Date

%d bloggers like this: