পুলিশের পরীক্ষায় হাইটেক টোকাটুকি, ধৃত মালদার যুবক

HnExpress নিজস্ব প্রতিনিধি, উত্তরবঙ্গ : তবে কি ৭০ দশক ফিরে আসছে! এমনই আতঙ্কে ভুগছে রাজ্যের মানুষ। রাজ্যজুড়ে এখন চলছে সন্ত্রাসের রাজত্ব, অন্তত বিরোধীরা তাই অভিযোগ করছেন। গত সপ্তাহে দুই ছাত্রের গুলিতে মৃত্যুর ঘটনা নাড়া দিয়েছে আমজনতাকে।

তার রেশ কাটতে না কাটতেই  রবিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর বালুরঘাটে ঘটল আরেকটি চমকপ্রদ ঘটনা। এদিন ছিল রাজ্য পুলিশে সাব-ইন্সপেক্টর ও কনস্টেবল পদে নিয়োগের লিখিত পরীক্ষা। প্রায় ৬ হাজার শূন্যপদে নিয়োগ করা হবে। সারা রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে অনুষ্ঠিত এই নিয়োগ পরীক্ষার মাধ্যমে প্রার্থী বাছাই করবে পুলিশ রিক্রুটমেন্ট বোর্ড। আর এই নিয়োগ পরীক্ষা ঘিরেই হাইটেক টোকাটুকির ঘটনা ঘটল বালুরঘাটে।

জানা গেছে, মোবাইল ফোনের ব্যবহারের নিষেধ সত্ত্বেও অত্যাধুনিক মানের ইলেক্ট্রনিক্স ডিভাইস নিয়ে পরীক্ষা দিতে বসে শেখ লিটন। বাড়ি মালদহের চাঁচল এলাকায়। তার সিট পড়েছিল বালুরঘাট খাদিমপুর উচ্চবিদ্যালয়ে। পরীক্ষা কেন্দ্রে ঢোকার আগে পুলিশ তল্লাশিতে ধরা পড়ে ওই যুবক। তার জুতোর ভেতর থেকে উদ্ধার হয় পাতলা ইলেক্ট্রনিক্স ডিভাইস। পুলিশ সূত্রে জানানো হয়েছে, এই ডিভাইসের মাধ্যমে মোবাইল ছাড়াই দূরের কারো সঙ্গে যোগাযোগ করা যায়।

মূলত প্রশ্নের উত্তর জানতেই ওই যুবক একাজ করেছে বলে মনে করছে পুলিশ প্রশাসন।


Posted

in

,

by

Tags:

Comments

Leave a Reply