পুলওয়ামার নৃশংস জঙ্গি হামলার প্রত্যাঘাতে ১২ দিনের ব্যবধানে সার্জিক্যাল স্ট্রাইক মোদী সরকারের

HnExpress বাপ্পাদিত্য ঘোষাল ঃ সীমান্তরেখা বরাবর বালাকোট সেক্টর দিয়ে পাকিস্তানের মাটিতে হামলা চালায় ভারতীয় বায়ুসেনা। বায়ুসেনার অত্যাধুনিক মিরাজ ২০০০ যুদ্ধবিমানে করে ১০০০ কেজি ওজনের বোমা ফেলা হয় পাকিস্তানের জঙ্গি ঘাঁটিতে। অন্তত ৩০০ জন জঙ্গির মৃত্যু হতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে সেনা সুত্রে। গত ১২ দিন আগে কাশ্মীরের পুলওয়ামাতে জঙ্গি সংগঠন জঈশ-ই-মহম্মদ এর নেতৃত্বে নৃশংস বিস্ফোরণে নিহত হন ভারতীয় সেনাবাহিনীর ৪৪ জন জওয়ান। যার ফলে সারা দেশবাসীর মনে জ্বলছিল নৃশংস হামলার প্রতিশোধের আগুন। আর ঠিক ১২ দিনের ব্যবধানে সেই হামলার প্রত্যাঘাতে সার্জিক্যাল স্ট্রাইক চালায় মোদী সরকার।

সেনা সুত্রের খবর, আজ ভোর ৩ঃ৩০ মিঃ থেকে আনুমানিক ৪ঃ৩০ মিঃ অব্দি চলে সেই হামলার প্রত্যুত্তর। বালাকোট, চকোটি ও মুজফফরাবাদে লঞ্চপ্যাড ধ্বংস করেছে সেনাবাহিনী। ভারতীয় সেনার হামলায় তছনছ পাক জঙ্গি ঘাঁটি। বেশ কয়েকটি জইশ জঙ্গি ঘাঁটি গুড়িয়ে গিয়েছে বলে সুত্রের খবর। পাক অধিকৃত কাশ্মীরে জইশের অন্তত ৩টি কন্ট্রোল রুম উড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। উড়িয়ে দেওয়া হয়েছে বেশ কিছু লঞ্চ প্যাডও।এদিন মুজফফরাবাদ সেক্টর থেকে ভারতীয় সেনা বিমান বাহিনীর ১০টি বিমান নিয়ন্ত্রণ রেখা পেরিয়ে হামলা চালায় পাকিস্তানে, এমনটাই দাবী স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের তরফ থেকে।

এদিন ভোর ৩.৩০টা নাগাদ নিয়ন্ত্রণ রেখার ৮০ কিমি ভেতরে ঢুকে বালাকোট ও চকৌটিতে জইশ-ই-মহম্মদের ৩টি জঙ্গী ঘাঁটির কন্ট্রোল রুমে প্রায় ১ হাজার কেজি ওজনের বোমা নিক্ষেপ করা হয়। এছাড়া মুজফরাবাদ থেকে পদাতিক বাহিনীও নিয়ন্ত্রণ রেখা থেকে ঢুকে হামলা চালিয়েছে বলেও সূত্রের খবর। পুলওয়ামা কান্ডের ১২দিন পরেই এই প্রত্যাঘাতে নামল ভারতীয় বাহিনী। মিরাজ ২০০০ একটি ফরাসী যুদ্ধবিমান। এই বিমান ভারতীয় বাহিনীকে যথেষ্ট শক্তিশালী করেছে বলে সেনা আধিকারীকদের দাবী। যুদ্ধ ছাড়া এই প্রথম পাকিস্তানের এতটা ভেতরে গিয়ে ভারতীয় বায়ু সেনার এমন অভিযান এক্কেবারে প্রথমবার বলে সেনা বিশেষজ্ঞদের দাবী।

তবে এরপরই পাকিস্তান পাল্টা হামলা চালাতে পারে বুএ আগে থেকেই ভারতীয় সেনাবাহিনীতে হাই এ্যালার্ট জারি করা হয়েছিল। ঠিক তাই ঘটল, ভারতের সার্জিক্যাল স্ট্রাইক এর মাত্র কয়েক ঘন্টার ব্যবধানেই পাল্টা জবাবে পাকিস্তান এর ড্রোন দেখা গেল গুজরাটের কচ্ছে সীমান্তে, নতুন কোন নাশকতার উদ্দ্যেশ্যে। কিন্তু আগে থেকেই সতর্ক থাকায় পাকিস্তানের সমস্ত কূটনৈতিক ছক বানচাল করল ভারতীয় সেনাবাহিনী। আজ সকাল ১১ টা নাগাদ গুজরাটের কচ্ছের সীমান্ত এলাকায় পাকিস্তানি ড্রোনকে গুলি করে নষ্ট করল ভারতীয় সেনা।

Leave a Reply

Latest Up to Date

%d bloggers like this: