নিউ বারাকপুর থানার উদ্যোগে ক্রিকেট প্রতিযোগিতায় চ্যাম্পিয়ন লেনিনগড় ইয়ংস্টার

HnExpress অলোক আচার্য, নিউবারাকপুর : পুলিশের সঙ্গে সাধারন মানুষের জনসংযোগ বাড়াতে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের প্রতিটি থানাকে নিদের্শ দিয়েছেন এলাকার ক্লাব সংগঠন গুলিকে নিয়ে ক্রিকেট ও ফুটবল প্রতিযোগিতা। তারই অঙ্গ হিসেবে নিউ বারাকপুর থানার পরিচালনায় ব্যারাকপুর পুলিশ কমিশনারেটের সহযোগিতায় স্হানীয় অগ্রদূত সংঘ ময়দানে দুদিন ব্যাপি অনুষ্ঠিত হল আট দলীয় বিরাট ক্যাম্বিজ ক্রিকেট প্রতিযোগিতা নক আউট পর্যায়ের।

রবিবার বিকালে ফাইনাল খেলায় লেনিনগড় ইয়ং স্টার এবং কামারগাতি অভিযাত্রী সংঘ মুখোমুখি হয়েছিল। টসে জিতে প্রথমে ব্যট করতে নেমে কমারগাতি অভিযাত্রী সংঘ ৮ ওভারে দশ উইকেট হারিয়ে ১০৩ রান করে। বিপক্ষে লেনিনগড় ইয়ং স্টার ৭.৫ ওভারে ৭ উইকেট হারিয়ে ১০৫ রান তুলে বিজয়ী দলের খেতাব তুলে নেয়। চ্যাম্পিয়ন এবং রানার্স দলের হাতে সুদৃশ্য ট্রফি তুলে দেন ব্যারাকপুর পুলিশ কমিশনারেটের বেলঘরিয়া ডিভিশনের এসিপি২ খন্দবাহালে উমেশ গনপত এবং নিউ বারাকপুর পুরসভার পুরপ্রধান তৃপ্তি মজুমদার।

ফাইনালে ম্যান অফ দ্যা টুর্নামেন্ট নির্বাচিত হন ইয়ং স্টারের গোপাল দাস,ম্যান অফ দ্যা ম্যাচ নেহাল সিং, বেস্ট ফিল্ডার অক্ষয় সিং, বেস্ট বোলার কার্তিক দাস, বেস্ট উইকেটকিপার পৃথ্বীশ মান্না। ফ্লেয়ার প্লে ট্রফি তুলে নেয় নিউ বারাকপুর পশ্চিম মাসুন্দা নেতাজী সংঘ। সেই সুদৃশ্য ট্রফি তুলে দেন নিউ বারাকপুর রেনবো অ্যাথলেটিক ক্লাবের সভাপতি সুখেন মজুমদার। সুখেন বাবু বলেন পুলিশের কাজ শুধু চোর ডাকাত ধরা নয়। এলাকার মানুষের সঙ্গে নিবিড় জনসংযোগ রেখে সুসম্পর্ক গড়ে তোলা। ক্লাব সংগঠন গুলিকে নিয়ে আট দলীয় এক বিরাট ক্যাম্বিজ ক্রিকেট প্রতিযোগিতা এলাকায় ব্যপক সাড়া ফেলে দিয়েছে। আন্তরিক ধন্যবাদ জানান নিউ বারাকপুর থানার ওসি হিমাদ্রি ডোগরা সহ সকল পুলিশ আধিকারিকদের।

এদিন উপস্থিত ছিলেন নিউবারাকপুর পুরসভার পৌরপিতা মনোজ সরকার, জয়গোপাল ভট্টাচার্য, পৌরমাতা লিপিকা দাস, নির্মিকা বাগচী, অর্চনা সেন, স্বপ্না বিশ্বাস, গৌরী সাহা, কুন্তলা সাহা, পুরপিতা অভিজিৎ বিশ্বাস, অশোক মিত্র, ব্যারাকপুর ২ পঞ্চায়েত সমিতির কর্মাধ্যক্ষ রমেশ রায়, সদস্য পরিতোষ মহন্ত, সমাজকর্মী সজল দাস, নীলাদ্রি শেখর মজুমদার প্রমুখ। প্রথম দিন ক্রিকেট প্রতিযোগিতার শুভ উদ্বোধন করেছিলেন নিউবারাকপুর থানার ভারপ্রাপ্ত আধিকারিক হিমাদ্রি ডোগরা। ফাইনাল খেলায় অংশগ্রহণ কারী আম্পেয়ারদের সন্মানিত করেন নিউবারাকপুর থানার আধিকারিকরা। খেলা পরিচালনার দায়িত্বে ছিলেন থানার এ এস আই সুব্রত গোস্বামী। ক্রিকেট প্রতিযোগিতায় চূড়ান্ত পর্যায়ের খেলা দেখতে দশর্কদের উপস্হিতি ছিল লক্ষ্যনীয়।

Leave a Reply

Latest Up to Date

%d bloggers like this: