একে দুধের মধ্যে প্লাস্টিক, সাথে পুলিশের অসহযোগিতা, চাঞ্চল্য নিউব্যারাকপুরে

HnExpress নিজস্ব প্রতিনিধি, নিউব্যারাকপুর : এবারে ফোটানো দুধের মধ্যে পাওয়া গেল প্লাস্টিক এর আবরণ। প্রতিদিন গৃহবধূ তার ১৯ মাসের মেয়ের জন্য স্থানীয় নবজীবন বাজার থেকে ৫০০ গ্রাম আমূল দুধের প্যাকেট কিনে এনে তাকে ফুটিয়ে খাওয়াতো। সোমবার রাত্রি সাড়ে ৮টার সময় দুধ জাল দিয়ে খাওয়াতে গিয়ে দেখেন দুধের বাটির চারিদিকে প্লাস্টিকের আবরণ। তিনি হতভম্ব হয়ে পড়েন। সঙ্গে সঙ্গে তিনি খাওয়ানো বন্ধ করে দেন। ঘটনাটি ঘটেছে নিউব্যারাকপুর পৌরসভার ১৮ নং ওয়ার্ডের দক্ষিণ কোদালিয়ার সত্যেন্দ্র বসু সরণিতে। অভিযোগকারিণী গৃহবধূ মণীষা দাস জানান, প্রতিদিনকার মতো সোমবার সন্ধ্যায় দুধ জাল দিতে গিয়ে দেখতে পাই বাটির চারপাশে প্লাস্টিকের আভা। নবজীবন বাজার থেকে প্রতিদিন দুধ কিনে আনি। দুধ বিক্রেতার নাম দীপু ভদ্র। দীপু ভদ্রের নামে স্থানীয় থানায় অসহায় মহিলা তার শিশুটিকে নিয়ে অভিযোগ দায়ের করতে গেলে পুলিশ অভিযোগ নিতে অস্বীকার করে। পুলিশ বলে, এক্ষেত্রে তারা কি করতে পারে, উপরন্তু মহিলাকে বলেন ক্রেতা সুরক্ষা দফতরের সাথে যোগাযোগ করতে। পুলিশের এহেন অসহযোগিতায় ও অমাবিকতায় ব্যর্থমনোরথ হয়ে বাড়ি ফিরে আসেন তিনি। সাম্প্রতিককালে যেখানে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী যখন বাড়ে বাড়ে পুলিশ প্রশাসনকে বলছেন, মানুষের পাশে থাকতে, মানবিক হতে, তাদের অভিযোগ নিতে ও তাদের সাথে সহযোগিতা করতে, সেই পরিস্থিতিতে থানার এহেন আচরণ সত্যিই বিস্ময়কর এবং অবশ্যই লজ্জাজনক ব্যাপার। উল্লেখ্য, ৫০০ গ্রাম আমূল দুধের প্যাকেটের মধ্যে তারিখ লেখা রয়েছে ১৪ই আগস্ট। এর ফলে এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়ায়।


Posted

in

, ,

by

Tags:

Comments

Leave a Reply