আতঙ্কের আবহে এক নতুন সংযোজন ঃ আচমকাই নারকেল গাছের পাতা সাদা হয়ে যাচ্ছে, এটা কি নতুন করে কোনো বিপদ সংকেত?

HnExpress ১৮ই মার্চ, বিশেষ প্রতিবেদন ঃ করোনা ভাইরাস আতঙ্কের আবহে এক নতুন সংযোজন, সম্প্রতি আচমকাই নারকেল গাছের পাতা সাদা হয়ে যাচ্ছে কিছু কিছু জায়গায়, এটা কি তবে নতুন করে কোনো বিপদ সংকেত? না, তা মোটেও নয়। এটি এক ধরণের মাছি বা মথ, যার নাম হলো- “Spirdling Whitefly“। এটা হলো মূলত এক ধরনের সাদা ছোট পোকা জাতীয়। যেটা পাতার নিচেই ডিম দেয়। আর এই পোকার একটি প্রজাতি আপনারা হয়তো এর আগেও পেয়ারা গাছের পাতায় দেখেছেন।

সুত্র অনুযায়ী আরও জানা গেছে যে, যার দরুন পেয়ারা গাছের পাতা সাদা হয়ে যেত সেই সময়েও। যেটা Miami-Dade Count —এ ২০০৯ সালে প্রথম দেখা দিয়েছিল। ভিয়েতনামি ডোয়ার্ব নারকেল গাছ যখন ভারতে আসে তার সাথে সাথে এই পোকার প্রজাতিটিও ভারতের শীলঙ্কা বা মালদ্বীপে প্রথম প্রবেশ করেছিল। তারপর সেটা সারা ভারতে ছড়িয়ে পরেছে বলেই কিছু সংখ্যক বিশেষজ্ঞদের অভিমত। সেরকমই ঘটনা গত পরশুর, বনগাঁর কিছু অঞ্চলে গাছে পাতা হঠাৎই সাদা হয়ে যাচ্ছে।

এই মথ সাধাণত, ৩ থেকে ৪ সপ্তাহ পর্যন্ত বাঁচে। এই আর পোকাটি ২৭° টেম্পারেচার এর নিচে উষ্ণতা থাকলে তবেই বেচে থাকতে পারে। যা ক্রমাগত ৩০ দিন উষ্ণতা যদি ২৭° এর ওপরে থাকে তাহলে এই পোকা আর আমাদের এই দিকে দেখা যাবে না। অতএব ঠিক মতো গরম পড়লেই এরা উধাও হবে বলেই মনে করছেন কৃষি বিজ্ঞানীরা। তাদের বক্তব্য, এটি এক ধরণের মথ, যা মানুষ বা জন জীবনের জন্য মোটেই ক্ষতিকর নয়। তাই এই নিয়ে ভয় অযথা পাওয়ার কারণ নেই।

 

Leave a Reply

%d bloggers like this: