অফিসে ঢুকেই তৃনমূল নেতাকে গুলি দুষ্কৃতিদের

HnExpress ভাস্কর বাগচি, বজবজ : পার্টি অফিসে ঢুকেই গুলি, মারাত্মক জখম তৃনমূল এর এক কাউন্সিলর। নদীয়ার পর এবার বজবজে নিজের কার্যালয়েই গুলিবিদ্ধ হয়ে গুরুতর আহত হলেন তৃনমূল এর কাউন্সিলর মিঠুন ঠিকাদার। সুত্র থেকে জানা গেছে হামলাকারী সেই দুস্কৃতিকারীরা হল ক্যাশ এবং কামান।

আরও জানা গেছে যে, এই কামান আর ক্যাশ হল বজবজেরই পরিচিত কিছু তৃনমূল নেতাদের খুবই ঘনিষ্ঠ। এদিন দুষ্কৃতিদের হাতে গুলি লাগার পরে দুষ্কৃতীদের পিছু না নিয়ে আগে সেই আহত কাউন্সিলরকে হাসপাতালে নিয়ে আসেন এলাকার তৃণমূলের কর্মীরা। যদিও পরে জানা গেছে সেই দুই অভিযুক্তদের নাম।

পুলিশ জানিয়েছে, দক্ষিণ ২৪ পরগণা জেলার বজবজ পৌরসভার ২০ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর তখন পার্টি অফিসেই বসে ছিলেন। আর ঠিক তখনই অফিসের ভিতর ঢুকে পড়ে কিছু দুষ্কৃতি। তারা মিঠুন বাবুকে লক্ষ্য করে পরপর দু রাইন্ড গুলি চালিয়ে পালিয়ে যায়। যাওয়ার আগে পার্টি অফিসের সামনে বোমা ফাটিয়ে যায় বলে এলাকাবাসীদের বক্তব্য। এদিকে একটি গুলি পেটে এসে লাগায় ঘটনাস্থলেই লুটিয়ে পড়েন মিঠুন বাবু। সঙ্গে সঙ্গে তাঁকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।

তাঁর অবস্থা এখনো ভীষনই আশংকাজনক। সিএমআরআই হাসপাতালে তিনি এখন চিকিৎসাধীন। তবে সুত্র থেকে এও জানা গেছে, যে কাউন্সিলর মিঠুন বাবু নিজেও কিন্তু খুব একটা ধোয়া তুলসি পাতা ছিলেন না। মাস খানেক আগে নাকি অপর কাউকে গুলি চালানোয় অভিযুক্ত সে নিজেও। সম্প্রতি নদীয়ার কৃষ্ণগঞ্জ বিধানসভার অন্তর্গত এলাকার তৃণমূল বিধায়ক সত্যজিৎ বিশ্বাসকে জনগণের মাঝে গুলি করে হত্যা করার হয়। আর আজ বজবজের তৃণমূল এর কাউন্সিলর মিঠুন ঠিকাদার আততায়ীর দ্বারা গুলিবিদ্ধ হয়ে মৃত্যুর সাথে লড়াই করছেন।

Leave a Reply

Latest Up to Date

%d bloggers like this: